সোমবার, ২৭ জুন ২০২২, ০৪:৩১ অপরাহ্ন
সর্বশেষ
বাগেরহাটে আন্তর্জাতিক মাদক বিরোধী দিবস পালিত বাগেরহাটে মাতৃত্বকালীন ভাতা প্রদান কর্মসূচির উপকারভোগীদের প্রশিক্ষন শুরু দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রকারীদের দাত ভাঙ্গা জবাব দেয়া হবে – শেখ তন্ময় এমপি চিতলমারীতে বিক্ষোভকারীদের ইটের আঘাতে কৃষকলীগ নেতা আহত বা‌গেরহা‌টে জেলা প্রশাস‌নের সা‌থে সরকারী বিদ‌্যাল‌য়ের অ‌ভিভাবক‌দের মত‌বি‌নিময় বাগেরহাট সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের অভিভাবক পরিষদের কমিটি গঠন বাগেরহাটে পরিবার পরিকল্পনা সেবার মান উন্নয়নে ওয়ার্কিং কমিটির সভা বাগেরহাটে মহানবী (সাঃ)কে কটুক্তির প্রতিবাদে বিক্ষোভ ব্ল্যাকমেইল করে দেড় মাস ধর্ষণ, অভিযুক্তকে ডেকে নিয়ে গিয়ে খুন করল দশম শ্রেণির ছাত্রী! নবী মোহাম্মদ (সাঃ) কে নিয়ে কটূক্তি করায় বিজেপি নেতা গ্রেপ্তার




রাষ্ট্রদ্রোহিতার মামলার প্রতিবাদে মোদিকে ১৮০ বিশিষ্ট ব্যক্তির খোলা চিঠি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • প্রকাশ: বুধবার, ৯ অক্টোবর, ২০১৯

গণপিটুনি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে চিঠি দেওয়ায় দেশটির ৪৯ জন বিশিষ্ট ব‍্যক্তির বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহিতার অভিযোগে মামলা দায়ের করার ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে এবার বিজেপি সরকারের উদ্দেশ্যে খোলা চিঠি লিখলেন ভারতের ১৮০ জন বিশিষ্ট ব‍্যক্তি।

তাদের মধ্যে রয়েছেন অভিনেতা নাসিরুদ্দিন শাহ, নৃত‍্যশিল্পী মল্লিকা সারাভাই, লেখক অশোক বাজপেয়ী, নয়নতারা শেহগল, শশী দেশপান্ডে, ঐতিহাসিক রোমিলা থাপা প্রমুখ। গত জুলাই মাসে নরেন্দ্র মোদিকে লেখা চিঠিকে সমর্থন করে তাদের লেখা চিঠির সঙ্গে গতবারের সেই চিঠিও যোগ করেছেন এই ১৮০ জন।
১৮০ জনের লেখা চিঠিতে বলা হয়েছে-

“সাংস্কৃতিক বিভাগের আমাদের ৪৯ জন সহকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। কারণ তারা আমাদের সমাজের একজন দায়িত্বশীল নাগরিকের কর্তব্য পালন করেছিলেন। আমাদের দেশে ক্রমবর্ধমান গণপিটুনি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রীকে একটি খোলা চিঠি লিখেছিলেন।

এটা কি রাষ্ট্রদ্রোহিতা হয়ে গেল? অথবা আদালতের মাধ্যমে দেশের দায়িত্ববান নাগরিকদের কন্ঠরোধ করার চক্রান্ত এটা? আমরা সবাই যারা ভারতীয় সংস্কৃতির অংশ এবং একজন বিবেকবান নাগরিক হিসেবে এই ধরনের হেনস্থার তীব্র নিন্দা জানাই। আমাদের সহকর্মীরা প্রধানমন্ত্রীকে পূর্বে যে চিঠি লিখেছিলেন তার প্রত‍্যেকটি শব্দকে আমরা সমর্থন করি। এই কারণেই সেই চিঠিটি আমরা আবার শেয়ার করছি। সমস্ত সাংস্কৃতিক, শিক্ষা জগত্‍ ও আইনী সম্প্রদায়ের ব‍্যক্তিদেরও এই চিঠি শেয়ার করার অনুরোধ করছি। এর ফলে আমাদের মতো অনেকে প্রতিদিন আওয়াজ তুলবে। মব লিঞ্চিংয়ের বিরুদ্ধে, মানুষের কন্ঠরোধ করার বিরুদ্ধে, আদালতকে ব‍্যবহার করে সাধারণ মানুষকে হয়রানি করার বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলবে।”

প্রসঙ্গত, গত জুলাই মাসে রামচন্দ্র গুহ, অনুরাগ কাশ্যপ, মণি রত্নম, শ্যাম বেনেগাল, সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়, শুভা মুদগল প্রমুখ ব‍্যক্তিরা নরেন্দ্র মোদির উদ্দেশ্যে লিখেছিলেন, “প্রিয় প্রধানমন্ত্রী… মুসলিম, দলিত ও অন্যান্য সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর গণপিটুনির ঘটনা এক্ষুনি বন্ধ হওয়া প্রয়োজন। ন‍্যাশনাল ক্রাইম রেকর্ডস ব্যুরোর রিপোর্ট অনুযায়ী, ২০১৬ সাল থেকে কমপক্ষে ৮৪০ জন দলিতের ওপর আক্রমণের ঘটনা ঘটেছে, যা জেনে আমরা স্তম্ভিত। এটা সামগ্রিকভাবে চিন্তার বিষয়।”

চিঠিতে আরও বলা হয়েছিলো, “যেভাবে ‘জয় শ্রী রাম’ স্লোগান নিয়ে যুদ্ধকালীন পরিস্থিতি তৈরি হচ্ছে, তা অত‍্যন্ত উদ্বেগজনক। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে দেশের আইনশৃঙ্খলার অবনতি হচ্ছে। ধর্মের নামে এই হিংসার ঘটনা দুঃখজনক। দেশের প্রধান হিসেবে এমন ঘটনার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়া উচিত আপনার।”

বর্তমান সময়ে একাধিক ক্ষেত্রে দেখা গেছে ভারত সরকারের সমালোচনা করলে ‘দেশদ্রোহী’ তকমা লাগিয়ে দেওয়া হয়। এই বিষয়টির উল্লেখ করে চিঠিতে লেখা হয়েছিল, “ক্ষমতাসীন দলের সমালোচনা করা মানে জাতির সমালোচনা করা নয়। কোনো শাসক দল দেশের সমার্থক হয়ে পারে না। সরকার বিরোধী অবস্থান মানে জাতীয়তা-বিরোধী নয়।”

ভারতের সাম্প্রদায়িক হিংসার পরিস্থিতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লেখার ফলে বিহারের মুজফ্ফরপুর থানায় দেশদ্রোহিতার মামলা দায়ের করা হয়েছিল ওই ৪৯ জন বিশিষ্ট ব্যক্তির বিরুদ্ধে। যার মধ্যে ছিলেন বিশিষ্ট পরিচালক আদুর গোপালকৃষ্ণন, ইতিহাসবিদ রামচন্দ্র গুহ’র মতো ব্যক্তিত্বরা। এবার ওই ৪৯ জনের পাশে দাঁড়ালেন আরও ১৮০ জন বিশিষ্ট। তাদের সমর্থনে নরেন্দ্র মোদিকে চিঠি লিখলেন তারা।

image_pdfimage_print




সংবাদটি ভাল লাগলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরো সংবাদ










© All rights reserved © 2019 notunbarta24.com
Developed by notunbarta24.Com
themebazarnotunbar8765