বুধবার, ২২ জুন ২০২২, ০৮:৩৯ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ
বা‌গেরহা‌টে জেলা প্রশাস‌নের সা‌থে সরকারী বিদ‌্যাল‌য়ের অ‌ভিভাবক‌দের মত‌বি‌নিময় বাগেরহাট সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের অভিভাবক পরিষদের কমিটি গঠন বাগেরহাটে পরিবার পরিকল্পনা সেবার মান উন্নয়নে ওয়ার্কিং কমিটির সভা বাগেরহাটে মহানবী (সাঃ)কে কটুক্তির প্রতিবাদে বিক্ষোভ ব্ল্যাকমেইল করে দেড় মাস ধর্ষণ, অভিযুক্তকে ডেকে নিয়ে গিয়ে খুন করল দশম শ্রেণির ছাত্রী! নবী মোহাম্মদ (সাঃ) কে নিয়ে কটূক্তি করায় বিজেপি নেতা গ্রেপ্তার বাগেরহাটে ক্লাইমেট-স্মার্ট প্রযুক্তির মাধ্যমে জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত বাগেরহাটে জেলা আওয়ামী লীগের বিক্ষোভ মিছিল তথ্য অধিকার আইনের সুফল পাচ্ছে না বাগেরহাটের মানুষ বাগেরহাটের যাত্রাপুর ইউনিয়নে উন্মুক্ত বাজেট সভা অনুষ্ঠিত




পদ্মায় ইলিশ আনতে গিয়ে দুই পুলিশ আটক

রাজবাড়ি প্রতিনিধি
  • প্রকাশ: মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৯

ইলিশ প্রজনন মৌসুমে রাজবাড়ীর পদ্মা নদীতে অবৈধভাবে মাছ শিকারকারী জেলেদের কাছ থেকে জোরপূর্বক ইলিশ নেওয়ার সময় দুই পুলিশ সদস্যকে আটক হয়েছে। এদের মধ্যে একজন রাজবাড়ী পুলিশ লাইন্সের এএসআই সফিকুল ইসলাম ও অন্যজন কোর্ট পুলিশের কনস্টেবল ওসমান গনি।

রাজবাড়ী জেলা মৎস্য কর্মকর্তা মজিনুর রহমান জানান, সোমবার মধ্যরাত থেকে মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত দুই পুলিশসহ মোট ১৮ জেলেকে আটক করা হয়েছে এবং জব্দ করা হয়েছে বিপুল পরিমাণে মাছ ও কারেন্ট জাল।

স্থানীয় বাসিন্দা ও চন্দনী ইউনিয়ন পরিষদের মেম্বার (সদস্য) মো. হেলাল উদ্দিন জানান, সোমবার দিবাগত মধ্য রাতে এই দুই পুলিশ সদস্যসহ সাত থেকে আটজনের একটি দল চন্দনী ইউনিয়নের সাবেক মেম্বার শহিদ শেখের বাড়িতে আসে। তারা নিজেদেরকে প্রশাসনের লোক পরিচয় দিয়ে ওই সাবেক ইউপি মেম্বরকে ট্রলার নিয়ে নদীতে যেতে বাধ্য করে। বিষয়টি এলাকায় ছড়িয়ে পরলে স্থানীয়রা জড়ো হতে থাকে। একপর্যায়ে ভোরের দিকে পদ্মা নদীর ধাওয়াপাড়া এলাকা থেকে জনতা তাদেরকে ধাওয়া দিলে রাজবাড়ীর কোর্ট পুলিশ কনস্টেবল ওসমান গনি ও পুলিশ লাইন সংলগ্ন সোবাহান মেম্বরের পুত্র বাবু জনতার হাতে আটক হয়। এসময় স্থানীয় জনতা উত্তম মধ্যম দিয়ে তাদেরকে একটি মাদ্রাসা কক্ষে আটকে রাখে। পরে পুলিশ সদস্যরা তাদেরকে উদ্ধার করে নিয়ে আসে।

অপরদিকে একইদিন পদ্মা নদীতে অভিযানকালে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও র‌্যাবের টহল দলের হাতে আটক হয় রাজবাড়ীর পুলিশ লাইন্সে কর্মরত এএসআই সফিকুল ইসলাম।

রাজবাড়ী থানার এস আই মো. জাহিদুল ইসলাম বলেন, পদ্মা নদীতে মাছ ধরতে বা আনতে যাওয়ার অভিযোগে আটক দুই পুলিশ সদস্যকে নিয়ে আসা হয়েছে। এরা যদি অপরাধ করে থাকে তদন্ত সাপেক্ষে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

রাজবাড়ী কালেক্টরেটের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. রফিকুল ইসলাম জানান, আটক ১৬ জেলেকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে। অপর দুই পুলিশ সদস্যকে কার্যক্রম শেষ করে জেলা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। তারা বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

image_pdfimage_print




সংবাদটি ভাল লাগলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরো সংবাদ










© All rights reserved © 2019 notunbarta24.com
Developed by notunbarta24.Com
themebazarnotunbar8765